1. mahadihasaninc@gmail.com : admin :
  2. hossenmuktar26@gmail.com : Muktar hammed : Muktar hammed
কিয়ামত ঘটার আগে শেষ রমজানে পৃথিবীতে কি ঘটবে - dailybanglarpotro
  • June 12, 2024, 2:59 pm

শিরোনামঃ
রাজশাহী নগরীতে ৪ নারীসহ ৮ ভুয়া সাংবাদিক গ্রেফতার রাজশাহী সিটি প্রেসক্লাবের নয়া কমিটির দায়িত্ব গ্রহন মহানগর ছাত্রলীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক জান্নাতুল ফেরদৌস পিয়ার উদ্যোগে বিশ্ব পরিবেশ দিবসে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি পালিত প্রকৃতি ও পরিবেশ সুরক্ষায় ‘গ্রিন কোয়ালিশন’ গঠন দুর্গাপুরে আলিপুর মক্কা আল-মদিনা ডায়াগনস্টিক সেন্টার উদ্বোধন চারঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী আলহাজ্ব ফখরুল ইসলাম আনারস প্রতীকে বিজয়ের দ্বারপ্রান্তে  পঞ্চগড়ে বঞ্চিত শিশুদের আনন্দ দিতে শিশুস্বর্গের নানা আয়োজন গৌরনদী উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থীর অন্তরঙ্গ ভিডিও ভাইরাল যমুনা লাইফের সাফল্যের কারিগর কামরুল হাসান খন্দকারের নেতৃত্বের ৫ বছর দুর্গাপুর উপজেলার দুটি কেন্দ্রে সংঘর্ষ; গুরুত্বর আহত ১২

কিয়ামত ঘটার আগে শেষ রমজানে পৃথিবীতে কি ঘটবে

  • Update Time : Monday, March 18, 2024
  • 69 Time View

ডেইলি বাংলা পত্র, ডেক্স নিউজ: আসসালামু আলাইকুম সবাই কেমন আছেন…..? আশা করি সবাই ভালো আছেন । আমি আল্লাহর রহমতে ভালোই আছি । কিয়ামত ঘটার আগে শেষ রমজানে পৃথিবীতে কি ঘটবে।

প্রিয় বন্ধুরা কিয়ামতের পূর্বে শেষ রমজান কেমন হবে সেই রমজানের মধ্যে আকাশ থেকে একটা বিকট শব্দ শোনা যাবে সেটা কিসের শব্দ হবে এমন এক রমজান আসবে যার পর এক বছরের মধ্যে আমাদের পার্থিব জীবন শেষ হয়ে যাবে। হ্যাঁ সেই রমজানের পরই কিয়ামত আসবে। সেই রমজানের আলামত কি হবে।

মানুষ কিভাবে জানতে পারবে যে এটাই পৃথিবীর শেষ রমজান। জানতে চাইলে আমাদের আর্টিকেলটি সম্পন্ন পড়ুন ।

এই পৃথিবীর শেষ কিভাবে হবে তা নিয়ে বিভিন্ন বিজ্ঞানি বিভিন্ন তথ্য দিয়েছেন। কেউ কেউ বলেছেন যে সূর্য আমাদের গ্রহকে তার তাপ দেওয়া বন্ধ করে দেবে ।সূর্যের আলো পৃথিবীতে প্রাণের সবচেয়ে অবিচ্ছেদ্য অংশ । কারণ সূর্যালোক সালোকসংশ্লেষ এর অন্যতম প্রধান উৎস এবং পানিচক্র সূর্যের আলো ছাড়া ধ্বংস হয়ে যাবে । কিছু কিছু বিজ্ঞানী বলেছেন পৃথিবীতে সমস্ত প্রাণী শেষ হয়ে যাবে আর নয়তো ওজোন স্তর বিলুপ্ত হয়ে যাবে । আমাদের পৃথিবীর সাথে সূর্য অথবা মহাশূন্য বিচরণকারী অন্য যে কোন গ্রহের সংঘর্ষ ঘটবে। প্রিয় দর্শক কিয়ামতের বেশ কিছু আলামত বিভিন্ন হাদীসের কিতাবে এবং কুরআনে বর্ণিত হয়েছে ।

যাই হোক কেয়ামতের কিছু লক্ষণ ইতিপূর্বেই সত্য প্রমাণিত হয়েছে যেমন হাদীসে রয়েছে কিয়ামতের আগে নিংস্ব এবং নগ্ন পায়ের রাখালেরা উচু উচু বিল্ডিং নির্মাণের প্রতিযোগিতা করবে । আমার প্রিয় ভাই ও বোনেরা এখন আমরা দেখতে পাচ্ছি আরবরা উঁচু উঁচু ভবন নির্মাণের চেষ্টা করছে। অন্য এক হাদীসে বলা হয়েছে কেয়ামতের পূর্বে দাসি তার মনিবকে জন্ম দেবে । এখন আমরা দেখতে পাচ্ছি উন্নত বিশ্বের অনেক দেশে সারোগেসি খুবই সাধারণ বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। যেখানে ধনী লোকেরা তাদের সন্তানদের জন্ম দেওয়ার জন্য একজন মহিলাকে ভাড়া করে । একবার নবী মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, কিয়ামতের আগে যিনা ব্যাপক হয়ে যাবে ।

কিছু মুসলিম দেশ সহ বিশ্বের অনেক দেশ গুলোতে চীনা ভাইরাসের মতো ছড়িয়ে পড়ছে । আস্তাগফিরুল্লাহ । আমার প্রিয় ভাই ও বোনেরা আমাদের অবশ্যই এই ভাইরাস থেকে নিজেদের রক্ষা করতে হবে । আল্লাহ আমাদের এই পাপ থেকে রক্ষা করুন এবং আমাদের ক্ষমা করুন অন্য আরেক হাদীসে নবী মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, কিয়ামতের পূর্বে সময়ের বরকত চলে যাবে সময় অনেক দ্রুত অতিক্রান্ত করবে। এখন আপনি অনুভব করতে পারেন যে আমাদের চারপাশের সবাই অভিযোগ করছে যে সময় কিভাবে দ্রুত চলে যায় ।

মনে হচ্ছে একটা বছর পার হচ্ছে এক মাসের মতো । একটা মাস এক সপ্তাহের মধ্যে চলে যায়। এক সপ্তাহ যায় এক দিনের মতো এবং একটি দিন 1 মিনিটের মত দ্রুত কেটে যায় । এগুলোর মতই কিয়ামতের পূর্বে শেষ রমজানের মাঝেও এক নিদর্শন রয়েছে ।নুয়াইম বিন হাম্মাদ তার কিতাবুল ফিতান একটি হাদীস বর্ণনা করেছেন যে, একবার নবী মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, কিয়ামতের আগে যে রমজান আসবে তখন লোকেরা রমজানে একটি বিকট আওয়াজ শুনতে পাবে এ আওয়াজ এতটাই রহস্যময় ও ভয়ঙ্কর হবে যে মানুষ ও অন্যান্য প্রাণীরা ভয় পেয়ে যাবে এবং সবাই সেই আওয়াজ এর উৎস খোঁজার চেষ্টা করবে।

কিন্তু তারা সেই আওয়াজ এর উৎস খুঁজে পাবেনা সেই রমজানের পর থেকে মানুষ তাদের ঘরের মধ্যে এক বছরের খাবার জমা করা শুরু করবে ।কারণ সেই আওয়াজ এর পর জমিনে ফসল হবে না এবং মানুষ অনাহারে থাকবে। ব্যাপক দুর্ভিক্ষ দেখা দেবে । প্রিয় ভাই ও বোনেরা মুসলমান হিসেবে আমরা কিয়ামত দিবসে বিশ্বাস করি এবং কিয়ামতের দিন সম্পর্কে আমাদের মনে কোন সন্দেহ নেই।

তাই আমাদের উচিত সেই দিনের জন্য নিজেদের প্রস্তুত থাকা সেই দিনের জন্য বেশী বেশী নেক আমল করা এবং আমাদেরকে প্রতিদিন আরো ভালো মুসলমান হওয়ার চেষ্টা করা উচিত কুরআনে বলা হয়েছে কিয়ামতের সময় খুবই আসন্ন। বলা হয়েছে তিনি ছাড়া আর কোন মাবুদ নেই তিনি অবশ্যই কিয়ামতের দিন তোমাদের সবাইকে একত্রিত করবেন এই ব্যাপারে কোন সন্দেহ নেই আর আল্লাহর চেয়ে অধিক সত্যবাদী আর কে। আল্লাহ আমাদের ক্ষমা করুন এবং বিচার দিনে আমাদের লজ্জাজনক কাজ গুলো গোপন রাখুন। আজকে এ পর্যন্তই সবাই ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবে আল্লাহ হাফেজ।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category